না দেখা দুর্লভ কিছু ছবি, হেমামালিনী সত্যজিৎ রায়ের সঙ্গে বঙ্গবন্ধু

বাংলাদেশের স্বাধীনতা আন্দোলনের অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান পুরো বিশ্বজুড়েই তুলেছিলেন ব্যাপক আলোড়ন। ১৯৭১ সালের ১৬ই ডিসেম্বর স্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার পর ভারতে ব্যাপক জনপ্রিয় হয়ে উঠেছিলেন শেখ মুজিব। আজ ২৬ মার্চ, বাংলাদেশের স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে প্রকাশিত এক বিশেষ প্রতিবেদনে তেমনটাই বলেছে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

পত্রিকাটি তাদের আর্কাইভ ঘেঁটে বের করে এনেছে বঙ্গবন্ধুর দুর্লভ কিছু ছবি। যেখানে শেখ মুজিবুর রহমানকে দেখা যাচ্ছে হেমামালিনীর মতো বলিউড তারকা, সত্যজিত রায়ের মতো বিশ্বখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক, গায়ক শ্যামল মিত্রের মতো বিখ্যাতদের সঙ্গে। একটি ছবিতে দেখা যায় বঙ্গবন্ধুর একটি পোস্টার হাতে দাঁড়িয়ে আছেন বলিউড তারকা সুনীল দত্ত। ছবিগুলো সবই ১৯৭২ থেকে ৭৫ সালের মধ্যবর্তী সময়ে তোলা।

বলিউড তারকারা নন, উল্টো বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানই যেন অটোগ্রাফ দিচ্ছেন তাদেরকে। ছবিতে হেমামালিনীকে দেখা যাচ্ছে সবার ডানে। আর বঙ্গবন্ধুর পিঠ ঘেঁষে দাঁড়িয়ে আছেন বলিউডের বিখ্যাত প্লেব্যাক সিঙ্গার মহেন্দ্র কাপুর (বাম থেকে দ্বিতীয়)।

অস্কারজয়ী চলচ্চিত্র পরিচালক সত্যজিত রায়ের সঙ্গে শেখ মুজিবুর রহমান। আর তাঁর হাত ধরে হাস্যোজ্জ্বল অবস্থায় দেখা যাচ্ছে বিখ্যাত সঙ্গীতশিল্পী শ্যামল মিত্রকে।

ফুটপাতের একটি পোস্টারের দোকানের সামনে দাঁড়িয়ে আছেন বলিউড অভিনেতা সুনীল দত্ত। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান যে বাংলাদেশের স্বাধীনতার পর ভারতে যথেষ্ট সুখ্যাতি কুড়িয়েছিলেন, তা স্পষ্টই বোঝা যায় এই পোস্টারের দোকানটি ভালোমতো দেখলে। এখানকার বেশিরভাগ পোস্টারেই দেখা যায় বঙ্গবন্ধুর মুখ। এমনকি সুনীল দত্ত যে পোস্টারটি ধরে দাঁড়িয়ে আছেন, সেখানেও মুখ্য চরিত্র শেখ মুজিব।

ভারতের রাষ্ট্রপতি ভিভি গিরির আলিঙ্গনে সিক্ত হচ্ছেন স্বাধীন বাংলার স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। ১৯৭৪ সালের ১৪ই মে তোলা হয়েছে ছবিটি। ভারতের রাষ্ট্রপতির আমন্ত্রণে সেসময় শেখ মুজিব গিয়েছিলেন দিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে।

দুর্দান্ত বক্তৃতা আর চমকপ্রদ ব্যক্তিত্ব দিয়ে শ্রদ্ধা আর সম্মান কুড়িয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। এমনটাই বলা হয়েছে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের এই প্রতিবেদনটিতে।